দেশে এখন ঘরে ঘরে বেকার- এরশাদ

 

 

প্রেস বিজ্ঞপ্তি
ঢাকা, ২৬ অক্টোবর ২০১৪ :


জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, জনসংখ্যাকে জনশক্তিতে রূপান্তরিত করতে হলে- শিল্পের বিকাশ ঘটিয়ে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে। তিনি বলেন, আমরা প্রতিশ্রুতি শুনেছিলাম- ঘরে ঘরে চাকুরির ব্যবস্থা করা হবে। এখন দেখা যাচ্ছে- ঘরে ঘরে বেকার। দেশের যুব সমাজ বেকারত্বের জ্বালা সইতে না পেরে তারা বিপদগামী হচ্ছে।

সাবেক রাষ্ট্রপতি এরশাদ আজ রোববার তাঁর বনানীস্থ কার্যালয়ে জাতীয় শ্রমিক পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখছিলেন।

শ্রমিক পার্টির সভাপতি শাহ আলম তালুকদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেনÑজাতীয় পার্টির মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, এস.এম. ফয়সল চিশতী, মিঃ সুনীল শুভ রায়, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব এ্যাড. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, যুগ্ম মহাসচিব নুরুল ইসলাম নুরু, কেন্দ্রীয় নেতা-মোবারক হোসেন আজাদ ও জসীম উদ্দিন ভূঁইয়া। সভা পরিচালনা করেন মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন।

আরো বক্তব্য রাখেন-মহানগর দক্ষিণের সভাপতি ইউনুস মৃধা, মহানগর উত্তরের সভাপতি জনাব মনির আহমদ, সাধারণ সম্পাদক মোঃ আলমগীর হোসেন তালুকদার, মহানগর দক্ষিণের রফিকুল ইসলাম রাজন, এ.কে.এম আশরাফুজ্জামান খান, আলহাজ্ব মোঃ আজিজ, মোঃ আজাহারুল আরেফিন মাহবুব, মোঃ বেলায়েত হোসেন, আব্বাস আলী মন্ডল, এ্যাড. আলবার্ট সোলায়মান অপু, কামরুজ্জামান খান, শাহজাহান মাস্তান, মোঃ শহিদুল আলম, মোঃ সৈয়দ আলী, মোঃ মোমতাজ উদ্দিন মজুমদার, সালাম মোল্লা, মুসলিম মোল্লা, মোঃ তালেব, মোঃ ফয়েজ আলী, আমিন গাজী, আমান উল্লাহ আমান, মোঃ মিলন শিকদার, মোঃ মুজিবুর রহমান মাষ্টার, মোঃ সাইফুল ইসলাম, আশরাফুজ্জামান তালুকদার বাচ্চু, বাবুল খান, আবুল কাশেম, মোঃ সৈয়দ আলী। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- আব্দুল মান্নান, বাবুল খান, মিজানুর রহমান তালুকদার, মোঃ শহীদ, আব্দুস সাত্তার, জাহাঙ্গীর হোসেন, মোঃ ইদ্রিস আলী, জাহাঙ্গীর মাতুব্বর, ফোরকান মির্জা, আব্দুল জলিল, আজিজুল হক আরজু, মোঃ ফয়েজ আলী, মোঃ শরাফত আলী।

সাবেক রাষ্ট্রপতি বলেন, ঘরে-বাইরে বেকারের মহোৎসব চলছে। বেকারত্বের অভিশাপ দেশকে শেষ করে ফেলছে। চারদিকে দূর্ণীতি, অবক্ষয় আর সন্ত্রাসে পরিপূর্ণ হয়ে আছে। দেশটা ক্রমেই হারিয়ে যাচ্ছে ধ্বংসের দিকে। এভাবে দেশ চলতে পারে না।

তিনি বলেন, এ সরকার জনশক্তি রপ্তানীর কথা বলছে। অথচ রপ্তানির নামে মানুষ নদীতে মরছে, বিদেশ গিয়ে ফিরে আসছে। এটাই জনশক্তি রপ্তানির নমুনা? তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, মানুষ পরিবর্তন চায়। এদেশে পরিবর্তন আসবেই। আমরা আরও একবার সুযোগ চাই। এদেশের মানুষকে সুবিচার ও সুশাসন দিবো।

সভায় সাবেক রাষ্ট্রপতি এরশাদ পার্টির মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির দায়ে জাতীয় পার্টির সাবেক শ্রমিক নেতা মোঃ শাখাওয়াত হোসেনকে জাতীয় পার্টির প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পদ ও দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি প্রদানের ঘোষণা দেন।